জেলাশিক্ষাঙ্গন

মতলব উত্তর উপজেলায় আয়োজিত হলো শিশু-কিশোর মাসিক ম্যাগাজিন অঙ্গীকার আড্ডা

মতলব উত্তর উপজেলায় আয়োজিত হলো শিশু-কিশোর মাসিক ম্যাগাজিন অঙ্গীকার আড্ডা
স্থানিয় জেলা প্রতিনিধি : তানিম প্রধান
 চাঁদপুর জেলার মতলব উত্তর উপজেলার চাঁন্দ্রাকান্দি গ্রামে গত ০৬-০৯-১৯ ইং তারিখ এস.ই.এল মডেল একাডেমীতে শিশু কিশোর ম্যাগাজিন “অঙ্গীকার” আড্ডা অনুষ্ঠিত হয়। এই অনুষ্ঠানে প্রায় ৫০ জন ক্ষুদে শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। শিশু কিশোরদের অংশগ্রহণে পুরো অনুষ্ঠানটি আনন্দময় হয়ে ওঠে! অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন অঙ্গীকার সম্পাদক মোঃ ঈসমাইল হোসেন। অনুষ্ঠানটি শুরু হয় বিকাল ৪ টায়। এর পূর্বেই বিদ্যালয় ক্যাম্পাসটি শিক্ষার্থীদের পদচারণায় মুখর হয়ে যায়। এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক জনাব মোঃ সালাউদ্দিন প্রমুখ আয়োজকদের প্রতি শুভ কামনা জানিয়ে বক্তব্য রাখেন। এরপর ক্ষুদে শিক্ষার্থীগন তাদের প্রজেক্ট উপস্থাপন করে। এগুলোর মধ্যে ছিল:-
১। বুদ্ধির ব্যায়াম -ঈসমাইল হোসেন
০২। তোমাদের প্রশ্ন আমাদের উত্তর -রাহাত চৌধুরী
০৩। গাছের পানি শোষণ – শামীম
০৪। মুদ্রার পরীক্ষা -নাঈম
০৫। শখ কত -মিথিলা চৌধুরী
০৬। আতশী কাচ- রশ্মি
০৭। সহজ কাজ সহজ নয় -জয়
এই প্রজেক্ট গুলো দেখে শিশুরা আনন্দ পায়। এছাড়াও ছিল বড় হয়ে কী হতে চাও? যেখানে শিশুরা তাদের ইচ্ছাশক্তির বহিঃপ্রকাশ ঘটায়।
অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন অঙ্গীকার এর উপদেষ্টা সম্পাদক জনাব মাঈনউদ্দিন চৌধুরী, সম্পাদক ঈসমাইল হোসেন, ম্যাগাজিন এর প্রচ্ছদ ও অঙ্গসজ্জাকর মোহাম্মদ সোলাইমান হোসেন (শুভ্র)। এরপর শুরু হয় ২য় অংশ। সেখানে বিভিন্ন মজার মজার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়, তার মধ্যে ছিল রহস্যের ঝুলি। এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের উপস্থিত-জ্ঞান যাচাই করা হয়। এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহনকারীদের মধ্যে সেরা ০৩ জন শিক্ষার্থী পুরস্কার পায়। এছাড়া আরও কিছু প্রতিযোগিতা হয়, যার মাধ্যমে শিশুরা আনন্দ পায়। সর্বশেষে উপদেষ্টা সম্পাদক জনাব মাঈনউদ্দিন চৌধুরীর সমাপনী বক্তব্যের মাধ্যমে অনুষ্ঠান সমাপ্তি করেন। সম্পাদক সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন, যারা এই আয়োজন করতে সাহায্য করেছেন।
অঙ্গীকার শিশু কিশোরদের নিয়ে গড়া একটি শিক্ষামূলক ম্যাগাজিন। আধুনিক যুগে পড়াশোনার পাশাপাশি অন্যান্য শিক্ষামূলক কাজ করে আসছে এই ম্যাগাজিন, যার মাধ্যমে শিশু-কিশোররা তাদের সুপ্ত প্রতিভার বিকাশ ঘটাতে পারছে। আনন্দের মাধ্যমে শিশুরা তাদের জ্ঞানের পরিধি বৃদ্ধি করতে পারছে। আজকের শিশুরা আগামী দিনের ভবিষ্যৎ। শিশুদের মননশীলতা বিকাশে অঙ্গীকার চমৎকারভাবে  কাজ করে একটি সুন্দর আগামীর দিকে এগিয়ে যাবে এমনটাই ক্ষুদে শিক্ষার্থী ও সংশ্লিষ্ট সকলের প্রত্যাশা।

Comment here