অন্যান্য

অস্ট্রেলিয়ার দাবানল: আগুন নেভাতে গিয়ে নিহত দমকল কর্মীর বীরত্ব পুরস্কার তুলে দেয়া হলো শিশুপুত্রের হাতে


বাবা জেফ্রি কিটনের মরণোত্তর বীরত্ব পুরস্কার গ্রহণ করে ১৯ মাস বয়সী হার্ভি কিটন

ছবির কপিরাইট
AFP / New South Wales Rural Fire Service

Image caption

বাবা জেফ্রি কিটনের মরণোত্তর বীরত্ব পুরস্কার গ্রহণ করে ১৯ মাস বয়সী হার্ভি কিটন

অস্ট্রেলিয়ার দাবানল নেভানোর চেষ্টা করতে গিয়ে মারা যাওয়া এক স্বেচ্ছাসেবীকে তার বীরত্বের জন্য সম্মান জানানো হয়েছে ঐ ব্যক্তির শিশুপুত্রের হাতে মেডেল তুলে দিয়ে।

১৯ মাস বয়সী হার্ভি কিটন বৃহস্পতিবার তার বাবার মরণোত্তর পুরস্কার গ্রহণ করে। পুরস্কারটি দেয়া হয় তার বাবার শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে।

সেসময় মি. কিটনের কফিনের পাশে দাঁড়িয়ে গার্ড অব অনার দেন দমকলকর্মীরা।

১৯শে ডিসেম্বর একটি আগুন নেভাতে যাওয়ার পথে গাড়িতে গাছ পড়লে মি. কিটন ও তার সহকর্মী অ্যান্ড্রু ও’ডোয়াইয়ার মারা যান।

অ্যান্ড্রু ও’ডোয়াইয়ারেরও একটি শিশু সন্তান রয়েছে, আগামী সপ্তাহে তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হবে।

নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্যের দমকল বিভাগের কমিশনার শেন ফ্রিটজসিমন্স শিশু হার্ভি কিটনের হাতে তার বাবার সাহসিকতার পুরস্কার তুলে দেন।

আরো পড়তে পারেন:

ইরানের শীর্ষ জেনারেলকে হত্যা করেছে যুক্তরাষ্ট্র

বিশ্বে নিরামিষভোজীর সংখ্যা বাড়ছে কেন?

অ্যামাজনকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন মুকেশ আম্বানি

ছবির কপিরাইট
EPA

Image caption

সাম্প্রতিক আগুনে মারা যাওয়া তিনজন দমকল কর্মীর একজন জেফ্রি কিটন

অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসনও শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন ‘জেফ কিটনের জীবন ও তার দেয়া সেবার প্রতি সম্ম্ন জানাতে’ তিনি শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

মি. কিটন ও মি. ও’ডোয়াইয়ার ছাড়াও দমকা বাতাসে ট্রাক উল্টে আরেকজন দমকলকর্মী মারা যান। ঐ ঘটনায় আহত হন দু’জন।

আগুনে সেপ্টেম্বর থেকে ১৮ জন মারা গেছেন। এদের মধ্যে এই সপ্তাহে নিউ সাউথ ওয়েলসেই ৭ জন মারা গেছেন। বাকিরা এখনও নিখোঁজ রয়েছেন।

আগুন নেভাতে এখন পর্যন্ত কয়েক হাজার দমকলকর্মী নিয়োগ করা হলেও বিশাল ঐ আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়নি। এই দমকলকর্মীদের অধিকাংশই স্বেচ্ছাসেবী, অর্থাৎ তারা বিনা পারিশ্রমিকে আগুন নেভানোর কাজ করছেন।



Source link

Comment here